চারদিনে ডেঙ্গু বেড়েছে তিনগুণ

0

নিজস্ব প্রতিবেদক : দুই দিন কমে গত ২৪ ঘন্টায় আবার বেড়ে গেলো ডেঙ্গু আক্রান্ত হয়ে হাসপাতালে ভর্তি রোগীর সংখ্যা। তুলনামূলক হিসাবে মাত্র চারদিনেই ডেঙ্গু রোগীর সংখ্যা বেড়েছে তিনগুণেরও বেশি। জুলাই মাসে যেখানে প্রতিদিন গড়ে ৫১৮ জন ডেঙ্গু আক্রান্ত হয়েছে সেখানে আগস্ট মাসে দিনে গড়ে আক্রান্ত হচ্ছে ১৭৪১ জন।
বিশেষজ্ঞরা বলছেন, সামনে আরো বাড়বে। কেননা আগস্ট ও সেপ্টেম্বর মাসই ডেঙ্গু বিস্তারের আসল মৌসুম।
গত বৃহস্পতিবার সকাল ৮ টা থেকে শুক্রবার সকাল ৮ টা পর্যন্ত ভর্তি হয়েছিলো ১৬৮৭ জন। বুধবার ভর্তি হয় ১৭১২ জন। বুধবারের পর দুই দিন কমতে থাকে ডেঙ্গু রোগী ভর্তির সংখ্যা। কিন্তু হঠাৎ করেই এই সংখ্যা ফের বাড়তে শুরু করেছে।
শনিবার সকাল ৮ টা থেকে আজ রোববার সকাল ৮ টা পর্যন্ত ১৮৭০ জন রোগী হাসপাতালে ভর্তি হয়েছেন। এবছর একদিনে এটাই সর্বোচ্চ। এরমধ্যে রাজধানীতে ১০৫০ জন এবং ঢাকার বাইরে ৮১৭ জন। গড়ে ঘন্টায় প্রায় ৭৮ জন করে রোগী ভর্তি হচ্ছেন হাসপাতালে।
এর আগে শুক্রবার সকাল ৮ টা থেকে শনিবার সকাল ৮ টা পর্যন্ত ভর্তি হয়েছিলো ১৬৪৯ জন। সেই হিসেবে একদিনে ২২১ জন বেড়েছে। ঢাকায় ছিলো ৯৬৫ জন। বেড়েছে ৮৫ জন। ঢাকার বাইরে ছিলো ৬৮০ জন, বেড়েছে ১৩৭ জন। হিসাব অনুযায়ি রাজধানীর চেয়ে ঢাকার বাইরে আক্রান্তের সংখ্যা বাড়ছে।
বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিক্যাল বিশ্ববিদ্যালয়ের ভাইরোলোজি বিভাগের চেয়ারম্যান প্রফেসর ডা. সাইফ উল্লাহ মুন্সী বলেন, ঢাকা থেকেই ডেঙ্গু রোগ ঢাকার বাইরে ছড়িয়েছে। রাজধানীর বাইরে যারা আক্রান্ত তারা সম্প্রতি কখনো না কখনো ঢাকায় এসেছিলেন বা যারা গেছেন, তাদের থেকে অন্যদের ছড়িয়েছে।
ঈদে ঢাকার বাইরে আরো বেশি ডেঙ্গু ছড়িয়ে পড়তে পারে বলে স্বাস্থ্যমন্ত্রী জাহিদ মালেকও শঙ্কা প্রকাশ করেছেন।
ডেঙ্গু পরিস্থিতি পুরোপুরি নিয়ন্ত্রনে না আসা পর্যন্ত ঢাকায় থাকাদের ঢাকার বাইরে না যাওয়ার পরামর্শ দিচ্ছেন বিশেষজ্ঞরা।
কন্ট্রোল রুমের সহকারী পরিচালক ডা. আয়শা আক্তার জানান, চলতি বছর জানুয়ারিতে ৩৭, ফেব্রয়ারিতে ১৯, মার্চে ১৭, এপ্রিলে ৫৮, মে ১৯৩, জুনে ১৮৬৩, জুলাইতে ১৫৫৬০ এবং আগস্টে এ পর্যন্ত (৪ আগস্ট) ৬৯৬৭ জন ডেঙ্গুতে আক্রান্ত হয়েছেন। এর মধ্যে এপ্রিলে ২ জন, জুনে ৩ জন, জুলাইয়ে ১৩ জন মারা গেছেন।

Share.

About Author

Leave A Reply