নওগাঁর ধামইরহাটে সম্মেলনকে ঘিরে চলছে আবেদন ফরম বানিজ্য

0

নিজস্ব প্রতিনিধি :
সবুজবাংলা২৪ডটকম, নওগাঁ : নওগাঁর ধামইরহাট উপজেলা আওয়ামী লীগের ত্রি-বার্ষিক সম্মেলন হতে যাচ্ছে দীর্ঘ ৭ বছর পর। তাই উচ্ছ্বসিত নেতা কর্মীরা। কিন্ত অভিযোগ উঠেছে- শীর্ষ দুই পদে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করতে গুনতে হচ্ছে দুই লাখ টাকা। টাকা দিতে না পারায় পত্যাশিত পদের জন্য আবেদন করতে পারেননি ত্যাগী নেতাদের অনেকেই।
গত সোমবার (১৭ অক্টোবর) এ বিষয়ে উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতির সাথে কথা বলতে গেলে তাঁর অনুপস্থিতিতে সাধারণ সম্পাদক শহিদু ইসলাম সাংবাদিকদের সাথে অশোভনীয় আচরণ করেন। তবে পরে তিনি মোবাইল ফোনে দলের অর্থ সংগ্রহের জন্য বিভিন্ন কৌশলে টাকা নেয়ার কথা স্বীকার করেন।
আসছে বৃহস্পতিবার (২১ অক্টোবর) ধামইরহাট উপজেলা আওয়ামী লীগের সম্মেলন। স্থানীয় ডিগ্রী কলেজ মাঠে চলছে প্রস্তুতি। অনুষ্ঠানে তথ্য ও সম্প্রচার মন্ত্রী হাসান মাহমুদ এমপিসহ কেন্দ্রীয় নেতাদের উপস্থিত থাকার কথা রয়েছে। ব্যানার, ফেস্টুনে সাজানো হয়েছে পুরো শহর। মুখর দলীয় কার্যালয়। তবে সম্মেলনকে ঘিরে আবেদন ফরম বানিজ্যের অভিযোগ উঠেছে দ্বায়িত্বশীলদের বিরুদ্ধে। টাকা দিতে না পারায় ত্যাগী নেতাদের অনেকেই আবেদন করতে পারছেন না।
ধামইরহাট উপজেলা আওয়ামী লীগ সহ-সভাপতি, আবু হানিফ জানান, ১৯৭৫ সাল থেকে আওয়ামী লীগের সাথে জড়িত তিনি। তিনি দল করতে গিয়ে হারিয়েছেন অনেক কিছুই। শেষ বয়সে এসে আওয়ামী লীগের পদ পেতে আবেদনের করতে দিতে হচ্ছে টাকা। এ কথা বলতেই অঝরে কেঁদে দিলেন তিনি।
উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক পদ পত্যাশিত এ টি এম হারেজ জানান, দীর্ঘদিন রাজনীতি করেছি আর তাই আমারও পত্যাশিত পদের জন্য প্রতিদ্বন্দ্বীতা করার ইচ্ছে ছিলো। কিন্তু পত্যাশিত পদের জন্য আবেদন ফরম নিতে দিতে হবে দুই লাখ টাকা। আর এ টাকা দিতে সম্ভব না হওয়ায় আমি প্রতিদ্বন্দ্বীতা করতে পারছি না।
এ বিষয়ে ধামইরহাট উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক, শহিদুই ইসলাম জানান, দলের অর্থ সংগ্রহের জন্য বিভিন্ন কৌশলে টাকা নেয়ার কথা। তবে এ ফরম সংগ্রহ না করেও সম্মেলনে দাঁড়িয়ে নিজেকে প্রার্থী হিসেবে ঘোষনা দিতে পারবেন।#

Share.

About Author

Leave A Reply